আপনার বয়স চেক করুন বয়স ক্যালকুলেটর দিয়ে! Click here. রোমান সংখ্যা দেখুন Roman Numbers Calculator দিয়ে! Click here.
FF Advance Server .co.in

স্বত্ববিলোপ নীতি কে প্রবর্তন করেন? ভারতে কীভাবে এই নীতি প্রয়োগ করা হয়েছিল?

লর্ড ডালহৌসি ১৮৪৮ খ্রিস্টাব্দে স্বত্ববিলোপ নীতি প্রবর্তন করেন। স্বত্ববিলোপ নীতি প্রয়োগ করে দেশীয় রাজ্যগুলিকে প্রত্যক্ষভাবে ব্রিটিশ শাসনের অধীনে আনতে চেয়েছিলেন তিনি।

লর্ড ডালহৌসির স্বত্ববিলোপ নীতি

দেশীয় রাজ্য দখলে স্বত্ববিলোপ নীতির প্রয়োগ

ভারতবর্ষে ব্রিটিশ সাম্রাজ্যবিস্তার তথা দেশীয় রাজ্য দখলের উদ্দেশ্যে ১৮৪৮ খ্রিস্টাব্দে লর্ড ডালহৌসি ভারতে এসে স্বত্ববিলোপ নীতি প্রবর্তন ও প্রয়োগ করেন। এই নীতির মূল বক্তব্যগুলি হল-

  • ১। ইংরেজ আশ্রিত কোনো দেশীয় রাজ্যের রাজা অপুত্রক অবস্থায় মারা গেলে সেই রাজ্যের রাজন্যবর্গ দত্তক নিতে পারবেন না এবং উক্ত রাজ্যটি সরাসরি ব্রিটিশ সাম্রাজ্যভুক্ত হবে।
  • 2। স্বত্ববিলোপ নীতির মধ্য দিয়ে বলা হয় যে, ইংরেজদের আশ্রিত কোনো রাজ্য যদি দত্তক নিতে চায় তবে তার আগে সেই রাজ্যকে কোম্পানির অনুমতি নিতে হবে এবং তা না হলে ওই রাজ্যটি সরাসরি কোম্পানির শাসনাধীনে চলে আসবে।
  • ৩। স্বত্ববিলোপ নীতি প্রয়োগের মাধ্যমে ১৮৫৭ খ্রিস্টাব্দের মধ্যে ভারতীয় উপমহাদেশের প্রায় ষাট ভাগেরও বেশি অঞ্চলে ব্রিটিশ কোম্পানির আধিপত্য প্রতিষ্ঠিত হয়।
  • ৪। দেশীয় রাজ্য দখলের উদ্যোগে স্বত্ববিলোপ নীতির প্রয়োগ ঘটিয়ে লর্ড ডালহৌসি সাতারা, সম্বলপুর, ঝাঁসি প্রভৃতি দেশীয় রাজ্য দখল করেন।


লর্ড ডালহৌসি প্রবর্তিত এই নীতি দেশীয় রাজাদের মধ্যে বিক্ষোভ সৃষ্টি করে। ডালহৌসি স্বত্ববিলোপ নীতি প্রয়োগের মধ্য দিয়ে হিন্দুদের চিরাচরিত রীতিনীতি ও প্রথাকে অগ্রাহ্য করেছিলেন। ফলস্বরূপ দেশীয় রাজন্যবর্গের মনে ব্রিটিশ বিরোধিতার সৃষ্টি হয়।


এইভাবে স্বত্ববিলোপ নীতি দেশীয় রাজ্য দখলের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিয়েছিল বলা যেতে পারে।

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url