বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী কে ছিলেন?

★★★★★
বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী, গৌতমীপুত্র সাকর্ণীর পুরানো মৃত্যুর পর সাতবাহন সাম্রাজ্যের সিংহাসনে আসেন। তাঁর শাসনে সাম্রাজ্য কৃষ্ণা নদীর মোহনা পর্যন্ত ...

গৌতমীপুত্র সাতকর্ণীর মৃত্যুর পর তাঁর পুত্র বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী সাতবাহন সাম্রাজ্যের সিংহাসনে আরোহণ করেন। তিনি ১৩০ খ্রিস্টাব্দ থেকে ১৫৪ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত রাজত্ব করেন। তাঁর শাসনামলে সাতবাহন সাম্রাজ্য কৃষ্ণা নদীর মোহনা পর্যন্ত বিস্তৃত হয়।

Vasishtya's son Pulumayi

বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী

রাজত্বের বিস্তার

বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী তাঁর পিতার কীর্তিকে বজায় রেখে সাতবাহন সাম্রাজ্যের বিস্তারে কাজ করেন। তিনি সাম্রাজ্যকে কৃষ্ণা নদীর মোহনা পর্যন্ত প্রসারিত করেন, যা তাঁর সামরিক কৌশল ও প্রশাসনিক দক্ষতার পরিচয় বহন করে। এই বিস্তার সাতবাহন সাম্রাজ্যের ক্ষমতা ও প্রভাব আরও বাড়ায়।


শকদের সাথে যুদ্ধ

পুলুমায়ীর শাসনামলে শকদের সাথে যুদ্ধের ঘটনাও ঘটে। তিনি শকদের সাথে দুবার যুদ্ধে পরাজিত হন। তবে, আত্মীয়তার খাতিরে শকরা তাঁকে ধ্বংস করেননি। এই ঘটনা প্রমাণ করে যে তাঁর সময়ে কূটনৈতিক সম্পর্ক ও আত্মীয়তার গুরুত্ব ছিল অপরিসীম।


কূটনৈতিক দক্ষতা

পুলুমায়ী ছিলেন একজন দক্ষ কূটনীতিক। শকদের সাথে যুদ্ধের পরেও তিনি তাঁদের সাথে কূটনৈতিক সম্পর্ক বজায় রাখেন। এই কূটনৈতিক সম্পর্ক তাঁর সাম্রাজ্যকে ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করে এবং সাম্রাজ্যের স্থিতিশীলতা নিশ্চিত করে।


উপসংহার

বশিষ্ঠ্য পুত্র পুলুমায়ী ছিলেন সাতবাহন সাম্রাজ্যের একজন যোগ্য উত্তরসূরি। তাঁর সাম্রাজ্যের বিস্তার, শকদের সাথে কূটনৈতিক সম্পর্ক এবং শাসনের দক্ষতা তাঁকে ইতিহাসে স্মরণীয় করে রেখেছে। তাঁর শাসনামলে সাতবাহন সাম্রাজ্য তার শক্তি ও প্রভাব বৃদ্ধি করে এবং কৃষ্ণা নদীর মোহনা পর্যন্ত বিস্তৃত হয়।

Tags:
Next Post Previous Post

You May Also Like

Editor
ইতিহাস পাঠশালা

যা কিছু প্রাচীন, যা কিছু অতীত তাই হল ইতিহাস৷ ইতিহাস পাঠশালা হল ইতিহাসের সংক্ষিপ্ত, উত্তরধর্মী, প্রবন্ধ মূলক পাঠ সহায়ক একটি ব্লগ৷ মূলত ইতিহাস বিষয়ক বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরাই এই ব্লগের প্রধান লক্ষ্য৷